ইউরোপীয় ইউনিয়নে ডিজিটাল কোভিড সার্টিফিকেট চূড়ান্ত অনুমোদন
ইইউ সদস্য রাষ্ট্রগুলোর জন্য আগামী ১ জুলাই থেকে বাধ্যতামূলকভাবে পরবর্তী এক বছরের জন্য কার্যকর থাকবে।

ইউরোপীয় ইউনিয়নে ডিজিটাল কোভিড সার্টিফিকেট চূড়ান্ত অনুমোদন

ফরিদ আহমেদ পাটোয়ারী, পর্তুগাল :

ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) মূল তিনটি প্রতিষ্ঠানের রাষ্ট্রপতিরা ইইউ ডিজিটাল কোভিড সার্টিফিকেট প্রস্তাবনার চূড়ান্ত অনুমোদনে স্বাক্ষর করেছেন। যা ইইউ সদস্য রাষ্ট্রগুলোর জন্য আগামী ১ জুলাই থেকে বাধ্যতামূলকভাবে পরবর্তী এক বছরের জন্য কার্যকর থাকবে। 

ইইউ প্রেসিডেন্সি কাউন্সিলের রাষ্ট্রপতি আন্তোনিও কস্তা, ইউরোপিয়ান কমিশনের প্রেসিডেন্ট উর্সুলা ভন ডের লিয়েন এবং ইউরোপিয়ান পার্লামেন্টের প্রেসিডেন্ট ডেভিড মারিয়া সাসোলি সোমবার (১৪ জুন) ইইউর কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এ স্বাক্ষর করেন। 

করোনা মহামারির প্রেক্ষাপটে ইইউর সদস্য দেশগুলোর মধ্যে আন্তঃসীমান্ত অবাধ চলাচলের জন্য ইউরোপীয় ইউনিয়নে সদস্য রাষ্ট্রগুলোর করোনা মহামারিতে ভ্রমণের একক নিয়মের একটি পরিকল্পনা গ্রহণের মাত্র ৬২ দিনের মাথায় সব সদস্য রাষ্ট্র এবং ইউরোপীয় ইউনিয়নের সব প্রতিষ্ঠান এ বিষয়ে সম্মত হয়। যা ইউরোপীয় ইউনিয়নের ক্ষেত্রে সবচেয়ে দ্রুততম কার্যকর হওয়া একটি সিদ্ধান্ত।

চূড়ান্ত অনুমোদনের পর ইউরোপিয়ান কমিশনের প্রেসিডেন্ট উর্সুলা ভন ডের লিয়েন তার টুইটার বার্তায় জানান, আমাদের সাফল্যমণ্ডিত  কোভিড ভ্যাকসিন কার্যক্রম এবং নতুন ইইউ সার্টিফিকেট গ্রীষ্মের সামনের দিনগুলোতে নিরাপদ ভ্রমণকে এগিয়ে নেবে এবং একটি উন্মুক্ত ইউরোপের চেতনা ফিরিয়ে আনতে ভূমিকা রাখবে।

বক্তব্যে তিনি উষ্ণ অনুভূতি প্রকাশ করেন। কারণ ৩৬ বছর আগে এই দিনে তৎকালীন ইইউর পাঁচটি দেশের মধ্যে অবাধ চলাচলের সেনজেন অ্যাগ্রিমেন্ট স্বাক্ষরিত হয়। তিন যুগ পর আজ সেই দিনে মহামারির কারণে সদস্য দেশগুলোর মধ্যে অবাধ চলাচলের বাধাগ্রস্ত  সমস্যা সমাধানে ইইউ ডিজিটাল কোভিড সার্টিফিকেট চূড়ান্ত অনুমোদনের ফলে আগের সেই স্বাক্ষরিত উন্মুক্ত ইউরোপের অধিকারটি আবারো রক্ষা করা হলো।

ইইউ প্রেসিডেন্সি কাউন্সিলের রাষ্ট্রপতি এবং পর্তুগিজ রাষ্ট্রপতি আন্তোনিও কস্তা বলেন, এটি আমাদের অর্থনীতি পুনরুদ্ধার বেগবান করতে একটি গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ।

যদিও এরইমধ্যে ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের ১৩টি দেশে এই ইইউ ডিজিটাল কোভিড সার্টিফিকেট ইস্যু করা শুরু করেছে এবং এর নির্ভরযোগ্যতা যাচাই করার জন্য ইইউ পরীক্ষামূলকভাবে সেবাটি গত ১ জুন থেকে চালু করেছে। সদস্য দেশগুলো পরীক্ষামূলকভাবে কিউআর কোড যুক্ত সার্টিফিকেট পরীক্ষা করতে পারছে।

করোনা মহামারির প্রেক্ষাপটে চলতি বছরের ১৭ মার্চ ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্য দেশগুলোর মধ্যে ফের চলাচলের জন্য একটি প্রস্তাবনা উপস্থাপনা করা হয় এবং গত ২০ মে ঐক্যমতের ভিত্তিতে একটি চুক্তি স্বাক্ষর করা হয়। এর ফলে ১ জুন থেকে ওই প্রযুক্তিটির পরীক্ষামূলক কার্যক্রম শুরু হয়।

ইইউ’র ডিজিটাল কোভিড সার্টিফিকেট ভ্রমণকারী ব্যক্তির টিকা, করোনা পরীক্ষা এবং রোগ মুক্তির তথ্য, বিনামূল্যে ইউরোপীয় ইউনিয়নের সব ভাষায় প্রকাশ, ডিজিটাল বা কাগজের ফরমেটে, নিরাপত্তা ব্যবস্থাসহ কিউ আর কোড আকারে থাকবে ফলে ইইউর মধ্যে খুব সহজেই অবাদ চলাচলের ক্ষেত্রে একটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে।

Leave a Reply