টরেন্টোর সিটি হলে উড়ল লাল-সবুজের পতাকা
বাংলাদেশের সুবর্ণজয়ন্তীতে কানাডার টরেন্টোর সিটি হলে উড়ল লাল-সবুজের পাতাকা।

টরেন্টোর সিটি হলে উড়ল লাল-সবুজের পতাকা

ইমিগ্রেশন নিউজ :

বাংলাদেশের সুবর্ণজয়ন্তীতে কানাডার টরেন্টোর সিটি হলে উড়ল লাল-সবুজের পতাকা। কানাডার স্থানীয় সময় দুপুরে টরন্টো সিটি মেয়র জন টরি, কাউন্সিলর ব্রাড ফোর্ড ও এমপিপি ডলি বেগমের উপস্থিতিতে বাংলাদেশের জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন।

প্রতিক্রিয়ায় মেয়র জন টরি বলেন, বাংলাদেশের স্বাধীনতার ৫০ বছর পূর্তিতে অভিনন্দন জানাই ৷ কানাডায় বসবাসরত বাংলাদেশি কমিউনিটি কানাডার সামগ্রিক উন্নয়নে ভূমিকা পালন করে চলেছেন। সবাইকে এই বিশেষদিনে শুভেচ্ছা জানাই।

অনুভূতি প্রকাশ করতে গিয়ে কানাডার অন্টারিও প্রদেশ থেকে নির্বাচিত প্রথম বাংলাদেশি এমপিপি ডলি বেগম বলেন, আজ বাংলাদেশের স্বাধীনতার ঘোষণার ৫০ তম বার্ষিকী। ৫০ বছর আগে অপারেশন সার্চলাইটের নৃশংসতার পর বাঙালির মূল সংগ্রাম শুরু হয়েছিল নয় মাস দীর্ঘ লড়াই।  ধর্ষণের শিকার হয়েছিল নারীরা। পরিবার হয়েছিল বাস্তুচ্যুত। জীবন দিয়েছে ৩০ লাখ মানুষ।

টরন্টো সিটি মেয়র জন টরি, এমপিপি ডলি বেগম ও কাউন্সিলর ব্রাড ফোর্ড

ওই সময় মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের কৃতজ্ঞ চিত্তে স্মরণ করেন ডলি বেগম। তিনি বলেন,  আমাদের স্বাধীনতার লড়াই সহজ ছিল না। তাদের কাছে আমরা চিরকাল কৃতজ্ঞ, যারা আমাদের স্বাধীনতার জন্য সমস্ত কিছু উৎসর্গ করেছেন। বাংলাদেশের এমন সমৃদ্ধিতে তাঁদের স্মরণ রাখতে হবে সব সময়।

তিনি বলেন, একজন বাংলাদেশি-কানাডিয়ান হিসেবে এই প্রদেশের স্কার্বারো দক্ষিণ-পশ্চিমের জনগণের সেবা করতে পারায় আমি গর্বিত। এই প্রদেশজুড়ে বাংলাদেশি-কানাডিয়ানদের সাথে বাংলাদেশের স্বাধীনতার ৫০ তম বার্ষিকী উদযাপন করা সম্মানের বিষয়। সর্বোপরি সিটি হলে বাংলাদেশি পতাকা উড়তে দেখে গর্বে বুক ভরে গেছে।

Leave a Reply