রোমানিয়ায় উচ্চশিক্ষা : বৃত্তি আবেদনের সময় শেষ হচ্ছে ৩০ এপ্রিল
বৃত্তি আবেদনের সময় শেষ হচ্ছে ৩০ এপ্রিল

রোমানিয়ায় উচ্চশিক্ষা : বৃত্তি আবেদনের সময় শেষ হচ্ছে ৩০ এপ্রিল

ইমিগ্রেশন নিউজ ডেস্ক :

ইউরোপের দেশ রোমানিয়ায় উচ্চশিক্ষায় বৃত্তির আবেদন নেওয়া শেষ হচ্ছে চলতি এপ্রিল মাসেই। প্রতিবছর নভেম্বরের মাঝামাঝি সময় থেকে শুরু করে ৩০এপ্রিল পর্যন্ত এ বৃত্তির আবেদন করা যায়। ১৫ জুলাই রোমানিয়ার বৃত্তির ফলাফল ঘোষণা করা হয়।

বৃত্তির আওতায় শিক্ষার্থীর লেখাপড়ার কোনো খরচ বহন করতে হয় না। থাকার খরচ সরকার বহন করে। হাতখরচ হিসেবে আনুষঙ্গিকভাবে প্রতি মাসে একজন ব্যাচেলর শিক্ষার্থীকে ৬৫ ইউরো, মাস্টার্স শিক্ষার্থীকে ৭৫ ইউরো এবং পিএইচডি শিক্ষার্থীকে ৮৫ ইউরো করে দেয় রোমানিয়া সরকার। মেডিসিন ও ফার্মেসি ছাড়া সব বিষয়ে পড়াশোনা করার জন্য এ বৃত্তি দেওয়া হয়

রোমানিয়ার কিছু উল্লেখযোগ্য বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে রয়েছে ইউনিভার্সিটি অব বুখারেস্ট, বুখারেস্ট ইউনিভার্সিটি অব ইকোনমিক স্টাডিজ, বাবেস-বলিয়াই ইউনিভার্সিটি, আলেকজান্দ্রু আইওয়ান কুজা ইউনিভার্সিটি, ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটি অব তিমিশোআরা, ইউনিভার্সিটি পলিটেকনিক অব বুখারেস্ট ওটেকনিক্যাল ইউনিভার্সিটি অব ঘিওরঘি আসাচি ইয়াস। একজন শিক্ষার্থী রোমানিয়াতে ব্যাচেলর, মাস্টার্স কিংবা পিএইচডি—যেকোনো লেভেলে উচ্চশিক্ষা গ্রহণ করতে পারেন। প্রতিবছর রোমানিয়ার সরকার ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের অন্তর্ভুক্ত নয়—এমন দেশগুলোর নাগরিকদের উচ্চশিক্ষার জন্য বৃত্তি দিয়ে থাকে।

বৃত্তির আবেদনে যা প্রয়োজন

· বৃত্তির আবেদন ফরম;

· যে ইউনিভার্সিটি পড়তে আগ্রহী, সে ইউনিভার্সিটির আবেদন ফরম;

· যাবতীয় শিক্ষা সনদ এবং ট্রান্সক্রিপ্টের কপি;

· জন্ম নিবন্ধন বা বার্থ সার্টিফিকেটের কপি;

· পাসপোর্টের বায়োগ্র্যাফিকাল পেজ এবং সেই সঙ্গে প্রথম তিন পৃষ্ঠা;

· মেডিকেল সার্টিফিকেট;

· ইউরো পাস ফরম্যাটের সিভি;

· দুই কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি;

কী কী করতে হবে

সমস্ত কাগজপত্র ইংরেজি কিংবা ফ্রেঞ্চ অথবা রোমানিয়ান ভাষায় হতে হবে। ডকুমেন্ট রেডি হয়ে গেলে কুরিয়ার সহযোগে দিল্লিতে অবস্থিত রোমানিয়ার দূতাবাসের কাছে পাঠাতে হবে। দিল্লির রোমানিয়ার দূতাবাস এসব ডকুমেন্ট ভেরিফাই করে রোমানিয়ার মিনিস্ট্রি অব ফরেন অ্যাফেয়ার্সের কাছে পাঠাবে। প্রতিবছরের ১৫ জুলাই বৃত্তির ফলাফল ঘোষণা করা হয়। মেডিসিন ও ফার্মেসি ছাড়া সব বিষয়ে পড়াশোনা করার জন্য এ বৃত্তি দেওয়া হয়। বৃত্তির আওতায় শিক্ষার্থীর লেখাপড়ার সব খরচ বহন করবে সে দেশের সরকার। থাকার জন্য স্টুডেন্ট হোস্টেলে আবাসন বরাদ্দ করা হবে। থাকার খরচও সরকার বহন করবে।

রোমানিয়ান দূতাবাসে যোগাযোগ

বাংলাদেশে রোমানিয়ার কোনো দূতাবাস নেই। এ কারণে স্কলারশিপের আবেদন থেকে শুরু করে ভিসা পর্যন্ত যাবতীয় কাজ দিল্লিতে অবস্থিত রোমানিয়ার দূতাবাসের সঙ্গে যোগাযোগ করতে হয়। যাবতীয় একাডেমিক ডকুমেন্ট দিল্লিতে রোমানিয়ার দূতাবাস থেকে লিগালাইজ করাতে হয়। দিল্লি দূতাবাস থেকে কোনো একাডেমিক ডকুমেন্ট লিগালাইজ করতে হলে প্রথমে সেগুলোকে আমাদের শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় কর্তৃক সত্যায়িত হতে হবে। অনেক সময় নোটারির প্রয়োজন হতে পারে। দিল্লিতে রোমানিয়ার দূতাবাসে কোনো ডকুমেন্ট লিগালাইজ করার জন্য পৃষ্ঠা প্রতি ২ হাজার ৮৫০ রুপি রাখে এবং ডকুমেন্ট লিগালাইজ করার সময় অরিজিনাল ডকুমেন্টের প্রয়োজন হয়।

দিল্লিতে রোমানিয়া দূতাবাসের সঙ্গে যোগাযোগের ঠিকানা
Address: D6/6, Vasant Vihar, New Delhi, Phone: 0091 11 26140447; 26140700 Fax: 0091 11 26140611Website: http://newdelhi.mae.ro/
E-mail: newdelhi@mae.roembrom@airtelmail.in
https://newdelhi.mae.ro/en/node/397
বৃত্তির জন্য বিস্তারিত তথ্য পাওয়া যাবে নিচের ওয়েবসাইটে
Scholarships offered by the Romanian State to foreign citizens through the MFA | Ministry of Foreign Affairs

Leave a Reply