৬ ফেব্রুয়ারি ঢাকায় ৫ দেশের শিক্ষামেলা
ঢাকায় হতে যাচ্ছে ৫ দেশের ২০ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষামেলা।

৬ ফেব্রুয়ারি ঢাকায় ৫ দেশের শিক্ষামেলা

মহামারী করোনায় স্তব্ধ সবকিছু। ২০২০ সালটি গেছে করোনার আঘাতে জর্জরিত হয়েই। মানুষ প্রতিনিয়ত জীবনশঙ্কা নিয়ে কাটিয়েছে ঘরে বন্দি সময়। বন্ধ ছিলো জীবনযাত্রার অনেক কিছুই। বন্ধ রয়েছে সরাসরি শিক্ষা কাযক্রম। নিয়ম মতো প্রতি বছর অনুষ্ঠিত হতো বিভিন্ন দেশের বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষামেলা।
কিন্তু করোনা  তবে ২০২১ সাল শুরু হতে না হতেই এসে গেছে করোনা প্রতিরোধে ভ্যাকসিন। ফলে বেড়ে মানুষের মাঝে আত্মবিশ্বাস। সেই আত্মবিশ্বাস থেকেই নতুন উদ্যমে অনেক কিছু শুরুর প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। সেই প্রক্রিয়ার অংশ হিসেবে ঢাকায় হতে যাচ্ছে ৫ দেশের ২০ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষামেলা।

আগামী ৬ ফেব্রুয়ারি হোটেল সোনারগাঁওয়ে দিনব্যাপী এ মেলার আয়োজন করছে বিদেশে উচ্চশিক্ষা বিষয়ক বাংলাদেশি পরামর্শক প্রতিষ্ঠান ‘এইমস এডুকেশন সল্যুশন’। তৃতীয়বারের মতো আন্তর্জাতিক এই শিক্ষামেলা অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। এর আগে এই মেলা মালয়েশিয়াভিত্তিক ছিলো। ২০১৫ সাল থেকে ঢাকা ও অন্যান্য বিভাগীয় শহরেও হয়ে আসছে।

এবারের মেলায় থাকছে বিনামূল্যে প্রবেশের সুবিধা, বিনামূল্যে ডকুমেন্ট অ্যাসেসমেন্ট এবং বৃত্তি বিষয়ে আলোচনা, এছাড়াও আর্থিক প্রতারণা রোধে ছাত্রছাত্রীদের বিশ্ববিদ্যালয়ে ফি পরিশোধের জন্য ঢাকা ব্যাংক মেলায় সরাসরি উপস্থিত থেকে দিক নির্দেশনা দেবে।

মেলায় অংশ গ্রহণ করতে যাওয়া বিভিন্ন দেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মধ্যে রয়েছে, কানাডার ইউনিভার্সিটি অব সাস্কাচেওয়ান, ইউনিভার্সিটি অব রেজিনা, ইউনিভার্সিটি অব মেনিটোবা, থমসন রিভার্স ইউনিভার্সিটি, যুক্তরাজ্যের কোভেন্টারি ইউনিভার্সিটি, মিডেলসেক্স ইউনিভার্সিটি অব লন্ডন, ইউনিভার্সিটি অব গ্রিনউইচ, অস্ট্রেলিয়ার ইউনিভার্সিটি অব ওলোঙ্গন, ইউনিভার্সিটি অব ক্যানবেরা, ইউনিভার্সিটি অব টেকনোলোজি সিডনি, মালয়েশিয়ার ইউনিভার্সিটি টেকনোলোজি, ইউনিভার্সিটি পুত্রা মালয়েশিয়া, ইন্টারন্যশনাল ইসলামিক ইউনিভার্সিটি মালয়েশিয়া, এশিয়া প্যসিফিক ইউনিভার্সিটি, মাল্টিমিডিয়া ইউনিভার্সিটি, মাহসা ইউনিভার্সিটি, দক্ষিণ কোরিয়ার সেজং
ইউনিভার্সিটি, গাচং ইউনিভার্সিটি, উসং ইউনিভার্সিটি ও চাংনাম ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি।

আয়োজকরা বলছেন, গত এক বছর ধরে বিদেশে উচ্চশিক্ষা নিতে ইচ্ছুক শিক্ষার্থীরা সঠিক তথ্যের অভাবে যথাযথভাবে ভর্তি প্রক্রিয়া শেষ করতে পারছিলেন না। তাদের সমস্যা সমাধানে এ মেলার আয়োজন করা হয়েছে। মেলায় শিক্ষার্থীরা পছন্দের বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্য নিয়ে ভর্তি প্রক্রিয়া
শুরু করতে পারবেন।

Leave a Reply